ঢাকা ০৫:৫১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৭ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
সোনারচর উচ্চ বিদ্যালয়ে অভিভাবক সমাবেশ ও ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির লটারি অনুষ্ঠিত। মেঘনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পদে পদোন্নতি ও বদলীজনিত বিদায় সংবর্ধনা ইতালীয়রা ভ্রমণের জন্য সৌদি আরবকে বেছে নিচ্ছেন কেন চীনা ভাষায় মক্কার গ্র্যান্ড মসজিদের ইসলামী শিক্ষা পুণ্যের আশায় স্ত্রীর জন্য সাধ্যমতো ব্যয় যে সাহাবির কবরে নেমেছিলেন রাসুল (সা.) কোরআনের অনুলিপি তৈরির শর্ত ও বিধান আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন চিত্রশিল্পী শাহাবুদ্দিন আহমেদের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ মেয়র লিটন গাইবান্ধা তুলসীঘাট কাশিনাথ উচ্চ বিদ্যালয়ে নবাগত প্রধান শিক্ষককে বরণ ও সংবর্ধনা  মান্দায় বিলহিলনার ইজারা প্রক্রিয়া বাতিলের দাবিতে মৎস্যজীবীদের  মানববন্ধন
সংবাদ শিরোনাম ::
সোনারচর উচ্চ বিদ্যালয়ে অভিভাবক সমাবেশ ও ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির লটারি অনুষ্ঠিত। মেঘনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পদে পদোন্নতি ও বদলীজনিত বিদায় সংবর্ধনা ইতালীয়রা ভ্রমণের জন্য সৌদি আরবকে বেছে নিচ্ছেন কেন চীনা ভাষায় মক্কার গ্র্যান্ড মসজিদের ইসলামী শিক্ষা পুণ্যের আশায় স্ত্রীর জন্য সাধ্যমতো ব্যয় যে সাহাবির কবরে নেমেছিলেন রাসুল (সা.) কোরআনের অনুলিপি তৈরির শর্ত ও বিধান আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন চিত্রশিল্পী শাহাবুদ্দিন আহমেদের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ মেয়র লিটন গাইবান্ধা তুলসীঘাট কাশিনাথ উচ্চ বিদ্যালয়ে নবাগত প্রধান শিক্ষককে বরণ ও সংবর্ধনা  মান্দায় বিলহিলনার ইজারা প্রক্রিয়া বাতিলের দাবিতে মৎস্যজীবীদের  মানববন্ধন

রাজশাহীতে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে সমৃদ্ধ বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর

স্টাফ রিপোর্টার
  • আপডেট সময় : ০৭:৫৯:৩৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০২২ ১৭ বার পড়া হয়েছে

 বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গৌরবময় ইতিহাসসহ স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাসে সমৃদ্ধ ‘বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স।’ স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার লক্ষ্য নিয়ে এটি নির্মাণ করেছেন রাজশাহী-(বাগমারা) আসনের সংসদ সদস্য, বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। স্বাধীনতার বিভিন্ন তথ্য নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরার উদ্দেশ্য নিয়ে নির্মাণ করা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর। স্বাধীনতার ৫১ বছরে এসে অনেকেই জানেন না স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস। স্বাধীনতার শতশত ইতিহাস ধারণ করছে এই জাদুঘর। সেই সাথে দেশের প্রথম আওয়ামী লীগের ডিজিটাল কার্যালয় হিসেবে স্থান করে নিয়েছে ছয় তলা বিশিষ্ট অত্যাধুনিক ‘বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স’। এর আগে এ ধরণের কোন কার্যালয় দেশে স্থাপিত হয়নি বলে জানা গেছে। উপজেলার চানপাড়ায় এ কমপ্লেক্সের নির্মাণ কাজ শেষ হওয়ার পর থেকেই এখানে প্রতিনিয়ত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী সহ দর্শনার্থীদের আগমন ঘটেছে। বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর পরিদর্শনের মাধ্যমে তরুণ ও নতুন প্রজন্ম জানতে পারছে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস। ২০০৮ সালের ডিসেম্বরে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর স্থানীয় সংসদ সদস্যের উদ্যোগে এ ভবনটি নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়। ভবানীগঞ্জ তাহেরপুর সড়কের পাশে চানপাড়ায় ১৩ শতক জমি কিনে ছয় তলা বিশিষ্ট ভবনের নির্মাণ কাজ শুরু হয় করেন এমপি এনামুল হক। সেখানে ভবন নির্মাণের আগে ওই জমি জননেত্রী শেখ হাসিনার নামে রেজিষ্ট্রি করে দেন। তার পরেই শুরু হয় নির্মাণ কাজ। সাংসদের সম্পূর্ণ ব্যক্তিগত অর্থায়নে নির্মাণ করা হয়েছে ব্যয়বহুল ও অত্যাধুনিক এই কমপ্লেক্স। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি সম্মান রেখে আওয়ামীলীগের ডিজিটাল এই কার্যালয়টির নাম রাখা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স। এজন্য বঙ্গবন্ধু মেমোরিয়াল ট্রাষ্ট থেকে অনুমতিও নেওয়া হয়েছে। বহুতল এই ভবনে রয়েছে স্থানীয় সংসদ সদস্যের কার্যালয়। একই সাথে রয়েছে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি- সাধারণ সম্পাদক ও এর সহযোগী সংগঠনগুলোর সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের পৃথক পৃথক দপ্তর। শুধু তাই-ই নয়,কমপ্লে¬ক্সটির দ্বিতীয় তলায় রয়েছে সালেহা-ইমারত মিলানায়তন। তৃতীয় তলায় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গৌরবময় ইতিহাসসহ বিভিন্ন তথ্য সংরক্ষণ এবং নতুন প্রজন্মের কাছে স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার জন্য গড়ে তোলা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি যাদুঘর। সেখানে রয়েছে বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা যুদ্ধের স্মৃতিময় ভাস্কার্য এবং দূর্লভ সব ছবি। আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মী ও এলাকার সাধারণ মানুষের যাতায়াতের সুবিধার্থে এবং উভয়ের মধ্যে সেতু বন্ধন সৃষ্টি করতে কমপ্লেক্সটি বাগমারার ভবানীগঞ্জে নির্মিত হয়েছে। ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভানেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কমপ্লেক্সটির উদ্বোধন করেন। বর্তমানে এই কমপ্লেক্সের বঙ্গবন্ধু যাদুঘর পরিদর্শন করে চলেছেন বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের হাজার হাজার শিক্ষক-শিক্ষার্থী। বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের প্রতিষ্ঠাতা বাগমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এমপি এনামুল হক বলেন, আমি আজীবন জনগণের কল্যাণে কাজ করে যেতে চাই। প্রত্যন্ত এলাকার আপামর জনসাধারণ স্বাধীনতার পূর্ববর্তী এবং পরবর্তী প্রজন্ম যেন বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীন বাংলাদেশের প্রকৃত ইতিহাস সম্পর্কে জানতে পারে সে লক্ষ্যেই এটি তৈরি করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

রাজশাহীতে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে সমৃদ্ধ বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর

আপডেট সময় : ০৭:৫৯:৩৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০২২

 বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গৌরবময় ইতিহাসসহ স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাসে সমৃদ্ধ ‘বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স।’ স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার লক্ষ্য নিয়ে এটি নির্মাণ করেছেন রাজশাহী-(বাগমারা) আসনের সংসদ সদস্য, বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। স্বাধীনতার বিভিন্ন তথ্য নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরার উদ্দেশ্য নিয়ে নির্মাণ করা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর। স্বাধীনতার ৫১ বছরে এসে অনেকেই জানেন না স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস। স্বাধীনতার শতশত ইতিহাস ধারণ করছে এই জাদুঘর। সেই সাথে দেশের প্রথম আওয়ামী লীগের ডিজিটাল কার্যালয় হিসেবে স্থান করে নিয়েছে ছয় তলা বিশিষ্ট অত্যাধুনিক ‘বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স’। এর আগে এ ধরণের কোন কার্যালয় দেশে স্থাপিত হয়নি বলে জানা গেছে। উপজেলার চানপাড়ায় এ কমপ্লেক্সের নির্মাণ কাজ শেষ হওয়ার পর থেকেই এখানে প্রতিনিয়ত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী সহ দর্শনার্থীদের আগমন ঘটেছে। বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর পরিদর্শনের মাধ্যমে তরুণ ও নতুন প্রজন্ম জানতে পারছে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস। ২০০৮ সালের ডিসেম্বরে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর স্থানীয় সংসদ সদস্যের উদ্যোগে এ ভবনটি নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়। ভবানীগঞ্জ তাহেরপুর সড়কের পাশে চানপাড়ায় ১৩ শতক জমি কিনে ছয় তলা বিশিষ্ট ভবনের নির্মাণ কাজ শুরু হয় করেন এমপি এনামুল হক। সেখানে ভবন নির্মাণের আগে ওই জমি জননেত্রী শেখ হাসিনার নামে রেজিষ্ট্রি করে দেন। তার পরেই শুরু হয় নির্মাণ কাজ। সাংসদের সম্পূর্ণ ব্যক্তিগত অর্থায়নে নির্মাণ করা হয়েছে ব্যয়বহুল ও অত্যাধুনিক এই কমপ্লেক্স। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি সম্মান রেখে আওয়ামীলীগের ডিজিটাল এই কার্যালয়টির নাম রাখা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্স। এজন্য বঙ্গবন্ধু মেমোরিয়াল ট্রাষ্ট থেকে অনুমতিও নেওয়া হয়েছে। বহুতল এই ভবনে রয়েছে স্থানীয় সংসদ সদস্যের কার্যালয়। একই সাথে রয়েছে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি- সাধারণ সম্পাদক ও এর সহযোগী সংগঠনগুলোর সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের পৃথক পৃথক দপ্তর। শুধু তাই-ই নয়,কমপ্লে¬ক্সটির দ্বিতীয় তলায় রয়েছে সালেহা-ইমারত মিলানায়তন। তৃতীয় তলায় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গৌরবময় ইতিহাসসহ বিভিন্ন তথ্য সংরক্ষণ এবং নতুন প্রজন্মের কাছে স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার জন্য গড়ে তোলা হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি যাদুঘর। সেখানে রয়েছে বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা যুদ্ধের স্মৃতিময় ভাস্কার্য এবং দূর্লভ সব ছবি। আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মী ও এলাকার সাধারণ মানুষের যাতায়াতের সুবিধার্থে এবং উভয়ের মধ্যে সেতু বন্ধন সৃষ্টি করতে কমপ্লেক্সটি বাগমারার ভবানীগঞ্জে নির্মিত হয়েছে। ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভানেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কমপ্লেক্সটির উদ্বোধন করেন। বর্তমানে এই কমপ্লেক্সের বঙ্গবন্ধু যাদুঘর পরিদর্শন করে চলেছেন বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের হাজার হাজার শিক্ষক-শিক্ষার্থী। বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের প্রতিষ্ঠাতা বাগমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এমপি এনামুল হক বলেন, আমি আজীবন জনগণের কল্যাণে কাজ করে যেতে চাই। প্রত্যন্ত এলাকার আপামর জনসাধারণ স্বাধীনতার পূর্ববর্তী এবং পরবর্তী প্রজন্ম যেন বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীন বাংলাদেশের প্রকৃত ইতিহাস সম্পর্কে জানতে পারে সে লক্ষ্যেই এটি তৈরি করা হয়।