• সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ১২:৪৮ অপরাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনাম
নান্দাইল প্রেসক্লাব পদক ২০২২ পেলেন আজকের পত্রিকার সাংবাদিক মিন্টু মিয়া ডিমলা বাসীকে ”ঈদুল আজহার শুভেচ্ছা” জানিয়েছেন ওসি লাইছুর রহমান তিতাসে বাংলাদেশ ক্ষুদ্র মৎস্যজীবী জেলে সমিতির প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল কুমিল্লা কলেজ থিয়েটারের একযুগ পূর্তিতে চাঁদ পালঙ্কের পালা মঞ্চায়ন বর্ণাঢ্য আয়োজনে পালিত হচ্ছে আরএমপি’র ৩০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পুলিশ আপনার সেবায় সদা প্রস্তুত- করিমগঞ্জ থানার তদন্ত ওসি জয়নাল আবেদীন। রাজশাহী মেডিকেল কলেজের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপিত বাগমারার ঝিকরা ইউপি’তে চক্ষু শিবির অনুষ্ঠিত আর্তমানবতার সেবায় কাজ করে যাচ্ছেন বড়চর সমাজ কল্যাণ সংগঠনের তরুনরা। নওগাঁর মান্দায় লটারীর মাধ্যমে মহিলাদের জন্য আয়বর্ধক প্রশিক্ষণ প্রকল্পের প্রশিক্ষণার্থী নির্বাচিত

ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রাট্রেনে যৌন হয়রানির শিকার ৩ নারী ডাক্তার

Reporter Name / ৭৮ Time View
Update : বৃহস্পতিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২০

অনলাইন ডেস্ক   

চলন্ত ট্রেনে তিন ইন্টার্নি নারী ডাক্তারকে যৌন হয়রানীর অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই তিন নারী চিকিৎসক বিনা টিকিটে ট্রেনে ওঠা এক এনজিও কর্মীর কাছে যৌন হয়রানীর শিকার হন। ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রা ট্রেনে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত আসামিকে আটকের পর তাকে ৪ মাসের জেল দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিম অঞ্চলের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুজ্জামান। তিনি তার ফেসবুক পোস্টে এ ঘটনার বিবরণ দেন।

ফেসবুকে তিনি জানান, ‘একজন বিনা টিকেটের এনজিও কর্মীর এতটা দুসাহস দেখে আমি সহ অসংখ্য যাত্রী, সাংবাদিক, নিরাপত্তা  কর্মী সকলেই হতবাক। আসামির চরম বিকৃত, গর্হিত আচরণ শুধু মাত্র ক্ষমা চেয়ে মাফ পাওয়া যায় না। গতরাতে ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রা ট্রেনে একাই ৩  সীট দখল করে নবীন চিকিৎসকদের সাথে গভীর রাতের এই অসভ্য আচরনের বিবরণ WhatsApp এ আমাকে লিখে জানাচ্ছিলেন এই ৩ ডাক্তার,  সেই সাথে তাদের ভয়ার্ত চিৎকার কামরার অন্য যাত্রীদেরকেও ক্ষুদ্ধ ও বিচলিত করে তোলে। ঈশ্বরদী জিআরপির ওসি সাহেবের অনুরোধ পেয়ে আমি ট্রেনের ডিউটি পুলিশদেরক আসামিকে আটকের নির্দেশ দেই।

‘পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষিকা সহ ৩ ছাত্রী ও পুলিশের স্বাক্ষ্য রেকর্ড করলেও আসামির আচরণ, পারিপার্শ্বিকতা ও মনস্তত্ব পুনরায় যাচাই করে আজ সকালে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে দন্ডবিধির ৫০৯ ধারায়  ৪ মাসের জেল দন্ড প্রদান করে আসামিকে পাবনা জেলা কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। ভিক্টিমদেরকে রাতেই নিরাপত্তাসহ খুলনায় পৌঁছে দেওয়ার জন্য কর্তব্যরত পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’

তিনি আরো লেখেন, ‘ভিক্টিমের লিখিত বক্তব্য এতটাই লজ্জাজনক তাতে আমি নিশ্চিত যে, ৩ সন্তানের জনক এই আসামি একজন বিকৃত রুচির মানুষ। ভিক্টিমেরা নিয়মিত মামলা করতে রাজী না হওয়ায় ও পরবর্তী বিড়ম্বনা এড়াতে, নিয়মিত মামলা না করে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে বিচার চেয়েছেন। পাঠকদের কারো কাছে চলন্ত ট্রেনে এমন ঘটনা নিয়ে সন্দেহ হলেও এটা এক চরম সত্যের বিকট প্রকাশ মাত্র।’ভূক্তভোগী নারী ডাক্তারদের বাড়ি গাইবান্ধা। ৩৮ বছর বয়সী ওই আসামির বাড়িও একই জেলায়। তবে তাদের নাম প্রকাশ করেননি এই সরকারি কর্মকর্তা।

সূত্র : কালের কষ্ঠ

Print Friendly, PDF & Email


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category