• মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৬:৫৯ অপরাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনাম
রাজশাহীতে পুলিশের চাকরি দেবার নামে টাকা হাতিয়ে নেওয়া প্রতারক গ্রেফতার কক্সবাজার ডিএনসি মাদক নিয়ে ফেরিওয়ালা মহিলা আটক করেছেন রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে গ্রামীণ ব্যাংক কর্মচারি নিহত রাজশাহী মহানগরীতে জুয়েলার্স থেকে চুরি যাওয়া স্বর্ণালংকার উদ্ধার;দুই চোর গ্রেফতার আটপাড়ায় এইচ এস সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় উপলক্ষে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত কুষ্টিয়া ইউপি চেয়ারম্যানের ফেনসিডিল সেবনের ভিডিও ফাঁস! রাবিতে শেষ হলো ছায়া জাতিসংঘ সম্মেলন রাজশাহীর মোহনপুরে ভাতিজার হাতে চাচা খুন রাজশাহীর আলোচিত পিরু হত্যা মামলার মূল আসামী আটক তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে

ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রাট্রেনে যৌন হয়রানির শিকার ৩ নারী ডাক্তার

Reporter Name / ৪১ Time View
Update : বৃহস্পতিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২০

অনলাইন ডেস্ক   

চলন্ত ট্রেনে তিন ইন্টার্নি নারী ডাক্তারকে যৌন হয়রানীর অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই তিন নারী চিকিৎসক বিনা টিকিটে ট্রেনে ওঠা এক এনজিও কর্মীর কাছে যৌন হয়রানীর শিকার হন। ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রা ট্রেনে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত আসামিকে আটকের পর তাকে ৪ মাসের জেল দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিম অঞ্চলের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুজ্জামান। তিনি তার ফেসবুক পোস্টে এ ঘটনার বিবরণ দেন।

ফেসবুকে তিনি জানান, ‘একজন বিনা টিকেটের এনজিও কর্মীর এতটা দুসাহস দেখে আমি সহ অসংখ্য যাত্রী, সাংবাদিক, নিরাপত্তা  কর্মী সকলেই হতবাক। আসামির চরম বিকৃত, গর্হিত আচরণ শুধু মাত্র ক্ষমা চেয়ে মাফ পাওয়া যায় না। গতরাতে ঢাকা থেকে খুলনাগামী চিত্রা ট্রেনে একাই ৩  সীট দখল করে নবীন চিকিৎসকদের সাথে গভীর রাতের এই অসভ্য আচরনের বিবরণ WhatsApp এ আমাকে লিখে জানাচ্ছিলেন এই ৩ ডাক্তার,  সেই সাথে তাদের ভয়ার্ত চিৎকার কামরার অন্য যাত্রীদেরকেও ক্ষুদ্ধ ও বিচলিত করে তোলে। ঈশ্বরদী জিআরপির ওসি সাহেবের অনুরোধ পেয়ে আমি ট্রেনের ডিউটি পুলিশদেরক আসামিকে আটকের নির্দেশ দেই।

‘পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষিকা সহ ৩ ছাত্রী ও পুলিশের স্বাক্ষ্য রেকর্ড করলেও আসামির আচরণ, পারিপার্শ্বিকতা ও মনস্তত্ব পুনরায় যাচাই করে আজ সকালে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে দন্ডবিধির ৫০৯ ধারায়  ৪ মাসের জেল দন্ড প্রদান করে আসামিকে পাবনা জেলা কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। ভিক্টিমদেরকে রাতেই নিরাপত্তাসহ খুলনায় পৌঁছে দেওয়ার জন্য কর্তব্যরত পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’

তিনি আরো লেখেন, ‘ভিক্টিমের লিখিত বক্তব্য এতটাই লজ্জাজনক তাতে আমি নিশ্চিত যে, ৩ সন্তানের জনক এই আসামি একজন বিকৃত রুচির মানুষ। ভিক্টিমেরা নিয়মিত মামলা করতে রাজী না হওয়ায় ও পরবর্তী বিড়ম্বনা এড়াতে, নিয়মিত মামলা না করে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে বিচার চেয়েছেন। পাঠকদের কারো কাছে চলন্ত ট্রেনে এমন ঘটনা নিয়ে সন্দেহ হলেও এটা এক চরম সত্যের বিকট প্রকাশ মাত্র।’ভূক্তভোগী নারী ডাক্তারদের বাড়ি গাইবান্ধা। ৩৮ বছর বয়সী ওই আসামির বাড়িও একই জেলায়। তবে তাদের নাম প্রকাশ করেননি এই সরকারি কর্মকর্তা।

সূত্র : কালের কষ্ঠ

Print Friendly, PDF & Email


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category

একটি পরিকল্পিত আদর্শ ওয়ার্ড গড়ে তোলার লক্ষ্যে সকলের দোয়া প্রার্থী।